Last Update

Thursday, October 15, 2015

জেরুজালেমে গুলি ও ছুরিকাঘাতে তিন ইসরায়েলি নিহত

পশ্চিম তীরের হেবরন শহরে ফিলিস্তিনি বিক্ষোভকারীদের লক্ষ্য
করে কাঁদানে গ্যাসের শেল ছুড়ছেন একজন ইসরায়েলি সেনা। রয়টার্স
জেরুজালেমে গতকাল মঙ্গলবার গুলি ও ছুরিকাঘাতে নিহত হয়েছেন তিনজন ইসরায়েলি নাগরিক। পরে ইসরায়েলি পুলিশের গুলিতে এক হামলাকারী প্রাণ হারায়। এ ছাড়া গতকাল গাজা-ইসরায়েল সীমান্তে সহিংসতায় আহত হয়েছেন কমপক্ষে পাঁচ ফিলিস্তিনি। খবর এএফপির। ইসরায়েলি পুলিশের মুখপাত্র মিকি রোজেনফেল্ড বলেন, সকালে জেরুজালেমের একটি বাসে যাত্রীদের লক্ষ্য করে গুলি করা শুরু করেন দুই ব্যক্তি। এতে দুই ইসরায়েলি নিহত ও পাঁচজন আহত হন। এ সময় এক হামলাকারীকে হত্যা ও অপরজনকে আটক করে পুলিশ।
প্রায় একই সময়ে জেরুজালেমের একটি বাসস্ট্যান্ডে ছুরিকাঘাতের ঘটনায় এক ব্যক্তি নিহত ও কয়েকজন আহত হন। ইসরায়েলি পুলিশ বলছে, ইসরায়েলের সীমান্তের কাছে গতকালও শত শত ফিলিস্তিনি বিক্ষোভকারী জড়ো হয়ে টায়ার জ্বালিয়ে এবং পাথর ছুড়ে বিক্ষোভ করেছেন। তাঁদের ছত্রভঙ্গ করতে ইসরায়েলি বাহিনী পাল্টা ব্যবস্থা নেয়। অন্যদিকে, ফিলিস্তিনি চিকিৎসকদের একটি সূত্র জানায়, সীমান্তে জড়ো হওয়া ফিলিস্তিনিদের ওপর ইসরায়েলি বাহিনী গুলি ছুড়লে পাঁচ ব্যক্তি আহত হয়েছেন। এঁদের মধ্যে দুজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক। গত মাসের মাঝামাঝি পূর্ব জেরুজালেমের ওল্ড সিটিতে মুসলমানদের পবিত্র আল-আকসা মসজিদের প্রাঙ্গণে ইহুদিদের অনুষ্ঠান আয়োজন ও ফিলিস্তিনিদের বিরুদ্ধে নিষেধাজ্ঞাকে কেন্দ্র করে উত্তেজনার সৃষ্টি হয়। চলতি মাসের শুরুতে বন্দুকধারীদের গুলিতে ইসরায়েলি এক দম্পতি নিহত হয়। ইসরায়েল এর জন্য হামাসকে দায়ী করলে সৃষ্ট উত্তেজনা আরও তীব্রতা পায়। একের পর এক ছুরিকাঘাতের ঘটনা ঘটতে থাকে। যদিও বেশির ভাগ ছুরিকাঘাতের ঘটনায় হামলাকারীরা ইসরায়েলি পুলিশের হাতে নিহত হন।

Post a Comment

 
Back To Top